আন্তর্জাতিক

নিজেদের বাড়িঘর নিজেরাই পুড়িয়ে দিচ্ছে আর্মেনীয়রা

১৫ নভেম্বর ২০২০, বিন্দুবাংলা টিভি. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

নাগরনো-কারাবাখ থেকে পালিয়ে যাওয়ার আগে নিজেদের বাড়িঘর পুড়িয়ে দিচ্ছে আর্মেনীয় বংশোদ্ভূতরা। শনিবার আল-জাজিরা অনলাইন এ তথ্য জানিয়েছে।

গত কয়েক দশক ধরে নাগরনো-কারাবাখের কালবাজার জেলাটি দখল করে রেখেছিল আর্মেনীয় বংশোদ্ভূতরা। প্রায় ছয় সপ্তাহ ধরে নাগরনো-কারাবাখ নিয়ে লড়াইয়ের পর আজারবাইজানের সঙ্গে শান্তিচুক্তি করে আর্মেনিয়া। কয়েক দফা চুক্তি ভঙ্গের পর গত সপ্তাহে নাগরনো-কারাবাখে শান্তিরক্ষী বাহিনী মোতায়েন করেছে রাশিয়া। নতুন চুক্তির আলোকে যুদ্ধের মাধ্যমে আজারবাইজান নাগরনো-কারাবাখের দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর শুশাসহ যেসব এলাকা দখলে রেখেছে সেগুলো তাদের দখলেই থাকবে। আর আর্মেনীয় বংশোদ্ভূত নাগরনো-কারাবাখের বাহিনী যেসব স্থানে হামলা চালিয়েছে সেসব স্থান থেকে তাদেরকে পহেলা ডিসেম্বরের মধ্যে সরে যেতে হবে।

আল-জাজিরা জানিয়েছে, শনিবার সীমান্তবর্তী জেলা মারতাকার্টের চারেকতার গ্রামের ছয়টি বাড়িতে অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে। বাসিন্দারা আর্মেনিয়ায় চলে যাওয়ার আগে তাদের বাড়িগুলো পুড়িয়ে দেয়।

স্থানীয় এক বাসিন্দা বলেন, ‘এটি আমার বাড়ি। তুর্কিদের জন্য আমি এটি ছেড়ে যেতে পারি না। সবাই তাদের বাড়ি আজ পুড়িয়ে দিচ্ছে। আমাদেরকে এলাকা ছাড়তে মধ্যরাত পর্যন্ত সময় দেওয়া হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, আজারবাইজানের বাসিন্দাদের আর্মেনীয়রা তুর্কি বলে সম্বোধন করে থাকে।

শুক্রবার চারেকতারের আরও ১০টি বাড়ি পোড়ানো হয়েছিল।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button