সারাদেশ

ছাত্রলীগ কর্মী পরিচয়ে ট্রাফিক সার্জেন্টকে মারধর, পরে আটক

১২ জুন ২০২১, বিন্দুবাংলা টিভি. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

সিগন্যাল অমান্য করার কারণ জানতে চাওয়ায় সিলেট নগরীর চৌহাট্টা পয়েন্টে কর্তব্যরত ট্রাফিক সার্জেন্টকে মারধর করেছেন সৌরভ চৌধুরী নামের এক যুবক। এ ঘটনায় সৌরভকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে নগরের চৌহাট্টায় এ ঘটনা ঘটে।

গ্রেপ্তার সৌরভ চৌধুরী নিজেকে ছাত্রলীগ কর্মী বলে পরিচয় দিয়েছেন। তিনি সিলেট শহরতলীর টুকেরবাজার পীরপুর এলাকার সন্তোষ ঘোষের ছেলে। আহত ট্রাফিক সার্জেন্ট মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন চিকিৎসা নিয়ে বাসায় অবস্থান করছেন।

কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম আবু ফরহাদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, সৌরভ সিগন্যাল অমান্য করে এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে বাধা দেওয়া হয়। সেই সঙ্গে সিগন্যাল অমান্য করার কারণ জানতে চাওয়া হয়। তখন নিজেকে ছাত্রলীগ কর্মী পরিচয় দিয়ে ট্রাফিক সার্জেন্ট জসিম উদ্দিনকে মারধর করে সৌরভ। খবর পেয়ে কোতোয়ালি মডেল থানার একদল পুলিশ চৌহাট্টা পয়েন্টে গিয়ে সৌরভকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে যায় এবং ট্রাফিক সার্জেন্ট জসিমকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। সৌরভের ব্যবহৃত মোটরসাইকেলটি জব্দ করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মামলা করেছেন ট্রাফিক সার্জেন্ট জসিম উদ্দিন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, থামতে সিগন্যাল দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ট্রাফিক সার্জেন্টের সঙ্গে বাগবিতণ্ডায় জড়ান ওই যুবক। নিজেকে ছাত্রলীগ কর্মী পরিচয় দিয়ে বলেন, আমি ছাত্রলীগ করি; ফোন দিলেই তোর অবস্থা খারাপ হয়ে যাবে। কিন্তু ট্রাফিক সার্জেন্ট তাকে যেতে না দেওয়ায় মারধর শুরু করেন যুবক।

এ বিষয়ে সিলেট মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) ফয়সল মাহমুদ বলেন, ‘সড়কের শৃঙ্খলা রক্ষার জন্য পরিশ্রম করে সড়ক পরিবহন আইন বাস্তবায়নের চেষ্টা করি। এ জন্য নাগরিক হিসেবে সবার আইন মেনে চলা এবং আইনশৃঙ্খলা প্রয়োগকারী সংস্থাকে সহযোগিতা করা উচিত। আইন প্রয়োগ করার সময় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ওপর হামলার ঘটনা খুবই জঘন্য। ওই যুবকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button