আইন-আদালত

ওসি প্রদীপ, পরিদর্শক লিয়াকতসহ ৩ আসামির ৭ দিন করে রিমান্ড, বাকিদের জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদ

৬ আগষ্ট ২০২০, বিন্দুবাংলা টিভি. কম, ডেস্ক: পুলিশের গুলিতে সাবেক সেনা কর্মকর্তা সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান নিহতের ঘটনায় দায়ের করা হত্যা মামলায় ওসি প্রদীপ, পরিদর্শক লিয়াকতসহ ৩ আসামির ৭ দিন করে রিমান্ড ও বাকিদের জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার (৬ আগস্ট) রাত ৮টার দিকে সিনহা হত্যা মামলায় র‍্যাবের করা রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেন কক্সবাজার আদালত। প্রত্যেক আসামির ১০ দিন করে রিমান্ড চেয়েছিল র‍্যাব। আদালত তিনজনের ৭ দিন করে মঞ্জুর করেছেন। বাকি ৪ জনকে জেলগেটে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নির্দেশ দিয়েছেন।

এর আগে আদালতে সাত আসামির আত্মসমর্পণের আনুষ্ঠানিকতা শেষে জামিন আবেদন নাকচ করে তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন হেলাল উদ্দিনের আদালত। আত্মসমর্পণ করা সাতজন আসামী হলেন- পরিদর্শক লিয়াকত আলি, পরিদর্শক প্রদীপ কুমার দাশ, এসআই দুলাল রক্ষিত, কনস্টেবল সাফানুর করিম, কামাল হোসেন, আব্দুল্লাহ আল মামুন এবং এএসআই লিটন মিয়া।

মামলার বাকি দুই আসামি এসআই টুটুল ও কনস্টেবল মো. মোস্তফা এখনও পলাতক বলে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি ফরিদুল আলম জানান।

বিকেলে আসামিদের কক্সবাজার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হয়। এরপর আসামিদের কারাগারে আটক রাখার আবেদন করা হয়। তবে কোনো রিমান্ডের আবেদন করা হয়নি। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক আসামিদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে পুলিশ পাহারায় তাদের আদালতে আনা হয়। বিকাল ৫টার দিকে চট্টগ্রাম থেকে পুলিশ হেফাজতে ওসি প্রদীপকে কক্সবাজরে আনা হয়। এ সময় আদালত প্রাঙ্গণে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়। কক্সবাজার জেলা জজ আদালতের কোর্ট ইন্সপেক্টর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ওসি প্রদীপ আদালতে আসার আধাঘণ্টা আগে হত্যা মামলার প্রধান আসামি লিয়াকতসহ আট জনকে কড়া প্রহরায় একই আদালতে আনা হয়। বুধবার আট আসামি পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেছে বলে জানা গেছে।

Related Articles

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button